খাগড়াছড়ির শ্রেষ্ঠ প্রাথমিক বিদ্যালয়

received_600955180241973.jpeg

পাঠদানে তথ্য-প্রযুক্তির ব্যবহারের খাগড়াছড়ির শ্রেষ্ঠ বিদ্যালয় (প্রাথমিক স্তরে) নির্বাচিত হয়েছে মাটিরাঙ্গা উপজেলার ‘বাইল্যাছড়ি মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়’। সোমবার বিকালের দিকে ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার সমাপনী অনুষ্ঠানে খাগড়াছড়ির জেলা প্রশাসক মো: রাশেদুল ইসলাম প্রতিষ্ঠানটির প্রধানের হাতে শ্রেষ্ঠত্বের স্বীকৃতি স্বরূপ ক্রেস্ট ও সনদ তুলে দেন।

অনুষ্ঠানে ‘বাইল্যাছড়ি মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়’র প্রধান শিক্ষক প্রীতিবালা ত্রিপুরা শ্রেষ্ঠত্বের স্বীকৃতি স্বরূপ ক্রেস্ট ও সনদ গ্রহণ করেন। জেলা পর্যায়ে শ্রেষ্ঠত্বের স্বীকৃতি পেয়ে অভিভুত বিদ্যালয়টির শিক্ষকরা। তারা এ প্রাপ্তিকে তাদের পরিশ্রমের স্বীকৃতি বলেই মনে করছে।

এদিকে প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে ডিজিটাল পাঠদানে খাগড়াছড়ির শ্রেষ্ঠ বিদ্যালয় (প্রাথমিক স্তরে) পর্যায়ে শ্রেষ্ঠত্বের স্বীকৃতি পাওয়ার পর এক প্রতিক্রিয়ায় ‘বাইল্যাছড়ি মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়’র প্রধান শিক্ষক প্রীতিবালা ত্রিপুরা এ স্বীকৃতি মাটিরাঙ্গার সাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিএম মশিউর রহমান-কে উৎসর্গ করে বলেন, তার আন্তরিকতার কারইে এ স্বকিৃতি পাওয়া সম্ভব হয়েছে। একই সাথে মাটিরাঙ্গা উপজেলা সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারের আন্তরিকতার কথা স্মরণ করেন তিনি। তারা দুজনে ডিজিটাল ক্লাসরুম প্রতিষ্ঠায় ভুমিকা রেখেছেন বলেই এ স্বীকৃতি পাওয়া সম্ভব হয়েছে।

বাইল্যাছড়ি মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক প্রীতিবালা ত্রিপুরা পাঠদানে তথ্য-প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়াতে মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিভীষণ কান্তি দাশ‘র সহযোগিতা কামনা করে বলেন, স্যারের দিকনির্দেশনায় বিভাগীয় ও জাতীয় পর্যায়ে শ্রেষ্ঠত্ব অর্জন করতে চায়।

প্রসঙ্গত মাটিরাঙ্গা উপজেলার বাইল্যাছড়ি মুসলিমপাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শেখ রাসেল ডিজিটাল ক্লাস রুম স্থপানের মাধ্যমে পাঠদানে তথ্য-প্রযুক্তির ব্যবহার নিশ্চিত করা হয়েছে।

Comments

comments

Top